অর্পিতা মন্ডল Arpita Mondal সুন্দরবনের দয়াপুর নামক একটি ছোট্ট অঞ্চলে জন্মানোর পরে পনেরো দিন বয়েসে কলকাতা আসা মা বাবার সাথে। তখন থেকেই কলকাতা সঙ্গী।বর্তমানে কলকাতায় বাস। ইংরেজি সাহিত্য নিয়ে পড়াশুনা করার সময় মনে হয়েছিল বাংলাটাই ভালো। তাই পড়াশুনা শেষ করে বাংলা কবিতা, গল্পের দিকে একটা আগ্রহ থেকেই কবিতা লেখা শুরু।

প্রথম একক কবিতার বই “তোকে নিয়ে সব কবিতারা” প্রকাশ হয় ২০১৯ এ।

কলকাতায় থাকলেও তার জীবনের প্রথম পাচঁটি কবিতা প্রকাশিত হয় বাংলাদেশেই বিদ্যাপীঠ সাহিত্য পরিষদের হাত ধরে “দীঘির জলে শিশির” নামক একগুচ্ছ কবিতা সংকলনে।কলকাতার নন্দীগ্রাম থেকে প্রকাশিত “অক্ষরকর্মী” বর্ষাসংখ্যায় কবিতা প্রকাশ ও তারপর থেকে যাত্রা শুরু।
কলকাতার আনন্দ প্রকাশন থেকে প্রকাশিত “উপমা সাহিত্য সংকলন” ও “অলংকার” আন্তর্জাতিক সাহিত্য পত্রিকায় প্রকাশিত হয় তার কবিতা সঙ্গে দুটি পত্রিকার প্রচ্ছদের ছবিটিও তার আঁকা।

২০১৮ তে, কলকাতার শান্তির পথে পরিবারের তরফ থেকে তিনি পান “শারদ সম্মান ২০১৯”।প্রাঙ্গণ সাহিত্য পত্রিকার তরফ থেকে তিনি পান “প্রাঙ্গণ সাহিত্যবর সম্মাননা,২০১৯”।

আরো অনেক পত্র পত্রিকায় ও বাংলাদেশের ইংরেজি ও বাংলা আঞ্চলিক সংবাদপত্রে বেশ কয়েকবার তার লেখা প্রকাশিত হয়েছে। তিনি নিজে “ফানুস” সাহিত্য পত্রিকার সম্পাদিকা।

বর্তমানে তিনি চিত্রশিল্পী হিসাবে পরিচিত হলেও লেখালেখির টানটা তার থেকেই যাবে পরবর্তীতে, এটি তার বিশ্বাস।