আকাশটাকে ছোঁবো আমি

ইচ্ছে হয় আকাশটাকে রঙিন করে দেখব
ইচ্ছে হয় আকাশটাকে কাছে গিয়ে ধরবো

ইচ্ছে করে তোমায় আমি রাত্রি ভরে দেখি
ইচ্ছে করে কাগজে তোমায় রঙিন করে আঁকি

ইচ্ছে হয় পাখির মত উড়ে যাই তোমার কাছে

দৃষ্টি ভরে আকাশ পানে

উড়ে বেড়ায় রঙিন সাজে

আকাশটা কে মনের মাঝে করি আলপনা
দৃষ্টি নয়নে এই ধরাতে তোমার ভাবনা

আকাশটাকে বলি তোমায় ছোঁবো আমি
পাখি হয়ে ছোঁবো তোমায়
যত দূরে থাকো তুমি

কবির মত ভাবতে আমি তোমায় নিয়ে পারি না
জোছনা রাতের তাঁরা হয়ে করবো তোমার যাতনা।
……………………………………………

আকাশ আমার বন্ধু

আকাশ তুই কি আমার দুঃখ হবি
আকাশ পানে পাড়ি দিব পাখির মত আমি

সুখ তুই কি আমায় দুঃখ দিবি
বিশালতা দিয়ে ভরিয়ে দিব
সকল প্রতিশ্রুতি

আকাশ তুই কি আমার বন্ধু হবি
তোর আবহাওয়া’র সকল গ্লানি
আমি হব সঙ্গী

সুখ তুই কি আমার বেদনা হবি
কষ্ট আমার ভালো লাগে সুখের সাথে আড়ি

আকাশ তুই আমার বন্ধু
সুখ আমার বেদনা
সকল গ্লানি মুছে দিব আমরা দু’জন দু’জনা ।
……………………………………………

মন বাগানের স্বপ্ন

সকালের ক্লান্ত সুরে কে আমায় ডাকছে
স্বপ্ন কেন হাতছানি দেয় আমার মনের বাগানে

খুব কষ্ট নিয়ে তৈরি করা আমার স্মৃতিগুলো
আকাশে কেনো উড়ে বেড়ায় আমার স্বপ্নগুলো

আমার জানতে খুব ইচ্ছে হয়
ইচ্ছে হয় আজও কেন নীরবে কাঁদে আমার স্মৃতি গুলো

রাত’ভর স্বপ্ন দেখি
দেখি নীরবতা

অজানাতে কেন হারিয়ে যায় অচিন মায়া’র পাতা
সন্ধ্যা হলেই ঘরে ফিরে
আমার নীরবতা

সকালের ক্লান্ত সুরে কে আমায় ডাকছে
চোখ খুলে দেখি সবই অদৃশ্য
আর কিছু মন বাগানের স্বপ্ন ।
……………………………………………

চাঁদের মত করে

একদিন হারিয়ে যাবো
সময় যাবে ফুরিয়ে
চোখ গুলো বন্ধ হবে
যেদিন যাওয়ার সময় হবে

প্রেম আকাশে ঘুড়ি বেড়ায়
নাটাই আমার হাতে
বিশ্বাস নেয় আজও তাহার
প্রেম হবে কিসে

আজও সব তারা গুলো
তাকিয়ে দেখে আমায়
আমিও দেখি শিশির আলো
প্রেমের জোছনা বেলায়

কাগজ-কলমে চিঠি দিও আগের মত করে
আমি আজ বদলে গেছি
তোমার মায়ায় পড়ে।

হঠাৎ একদিন হারিয়ে যাবো
ভালোবাসার তরে
এক পলকে আলো দিও চাঁদের মত করে ।
……………………………………………

আমার মেঘলা

আকাশে তোমায় দেখেছি
চাঁদ ডোবার সময়।

মেঘ করেছে বলে
অভিমান করেছি
সন্ধ্যা হবার সময়।

আজও রাত্রি হলে কথা বলি
নীরবতার সময়।

সময় ঠিকই হচ্ছে পার
মেঘলা ঠিকই ভালো আছে
শুধু আকাশটা আজ চাঁদের
সাথে হাত মিলিয়েছে।

অনেকবার বলেছি কাউকে ভালোবাসো
সে ঠিকই ভালোবাসে
শুধু দুপুর হলে কয়েক মিনিট মেঘ করে।

মেঘলা হয়ে থেকো না প্রিয়তমা
একবার কাউকে ভালোবেসে দেখো

এই পৃথিবীটা বদলে যাবে
একটি ভালোবাসার জন্য।
……………………………………………

তোমায় পাই’বা না পায়

তোমায় পাই’বা না পাই
তবুও রয়েছো হৃদয়ের আঙিনায়।

তুমি ভেবেছিলে আমি মনে হয়
তোমায় আর মনে করি না,

তোমায় পাই’বা না পাই
আমার এই শূন্য হৃদয়
শুধু তোমাকে’ই চায়।

বহুদিন তুমি দুরে রয়েছো
তোমার নেশার নৌকায়
আজও আমি ডুবে ডুবে যায়।

স্বপ্ন ছিল, আশা ছিল শুধু ছিলনা অভিমান
কিসের মোহে তুমি করলে এতো ব্যবধান!

আমার শহরে তুমি বিহীন
হায়নারা করছে আজ তাবা

আঁধারে শুধু দুঃখ নামের বিষের ভাবনা।

খুব কষ্টে যাচ্ছে আমার বেলা
অভিনয় দিয়ে করেছো স্বপ্ন ছাড়া।

একাকী নির্ঘুম, রাত আমার বন্ধু
আঁধারে আলোই চাঁদ আমার শত্রু ।

নতুন করে কি হবে জীবন?
আমি তো আগে থেকেই কাটাচ্ছি বন্দি জীবন ।

তোমায় পাই’বা না পাই
পরকালে যেন তোমার দেখা পায়।
……………………………………………

কতদিন দেখি না

খুব ইচ্ছে হচ্ছে
স্বপ্ন পাখিকে একবার দেখতে
খুব ইচ্ছে হচ্ছে
স্বপ্ন পাখির সাথে একবার কথা বলতে ।

জানিনা, স্বপ্নপাখি এখন কোথায় আছে
জানিনা, সে এখন কোন বনে বাস করে ।

বহুদিন হয়ে গেল স্বপ্ন পাখিকে দেখিনা,
আমারও তো মন পোড়ে স্বপ্ন পাখির জন্য,
স্বপ্নপাখি কি আমার জন্য একবারও ভাবে?
খুব ইচ্ছে হচ্ছে একবার জানতে!

নীরবে প্রতি রাতে আমি ভাবি তার কথা,
বার বার মনে আসে একটি কথাই
সে বলেছিল কখনো ভুলে যাবেনা!

আজ, সময় আমার সাথে বেঈমানী করেছে
সময়ের সাথে কথা গুলোও আজ হারিয়ে গেছে
নীল দরিয়ার গভীরে ।

আচ্ছা, সে কি আমায় সত্যি ভুলে গেছে?
নাকি আমার জন্য মধ্য রাতে নীরবে কাঁদে!

খুব মনে পড়ছে স্বপ্নপাখির কথা,
যদি এবার দেখতে পেতাম!
……………………………………………

আপন মানুষ পর

জগত বড়ই কঠিন
প্রয়োজনের মোহে
কেউ কারোর জন্য
করে না ঋণ ।

কষ্ট যখন বয়ে আসে
সকল বাধা এভাবেই
সুযোগ খুঁজে ।

কেউ পথ দেখায়
কেউ আবার অভাব দেখায়
কেউ আবার সে পথে
ঘুরপাক খায় ।

সময়-সুযোগে গ্রাস করে
আপন মানুষকে ভুলে যায়
লাভের আশায় সবাই প্রয়োজনে
মানুষকে আপন বানায় ।

চিন্তা বড়ই কঠিন
জগতে সবাই পরাধীন
এই ভুবনে বিশ্বাস ভেঙে
লোভীরা আজ শুধু’ই স্বাধীন ।
……………………………………………

একটি কবিতা তোমার জন্যে

একটি কবিতা লিখেছি তোমার জন্যে
তুমি আসবে নতুন সাজে নতুন রূপ নিয়ে

একটি কবিতা লিখেছি তোমার জন্যে
তোমার ওই আঁখি নয়ন দুটি মিটমিট করে দু’চোখে ভাসে

একটি কবিতা লিখেছি তোমার জন্যে
তোমার চলে যাবার মুহূর্তটা আমার কাছে এখনো নয়ন গুলো কেঁদে ওঠে

একটি কবিতা লিখেছি তোমার জন্যে
যে ভুলের জন্য তুমি এখনো আমার প্রতি অভিমান
সেই ভুল গুলো কে নিয়ে আমি একটি কবিতা লিখেছি তোমার জন্যে

একটি লাইনে আমার কষ্টগুলো লিখেছি
অন্য লাইনে তোমার ভুল গুলো তুলে ধরেছি

এই হল আমার একটি কবিতা তোমার জন্যে
তুমি সময় পেলে কবিতাটুকু পড়ে যেও
শেষের স্তবক গুলো মনে করার চেষ্টা করিও
কষ্ট জমা এই স্মৃতিগুলো আমাকে কাঁদাচ্ছে নাকি তোমাকে পোড়াচ্ছে

একটি কবিতা লিখেছি তোমার জন্যে
তুমি সাবেক হয়ে পড়তে পারো
আমার কবিতার প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত ।
……………………………………………

আকাশ আমার বন্ধু

আকাশ তুই কি আমার দুঃখ হবি
আকাশ পানে পাড়ি দিব পাখির মত আমি

সুখ তুই কি আমায় দুঃখ দিবি
বিশালতা দিয়ে ভরিয়ে দিব
সকল প্রতিশ্রুতি

আকাশ তুই কি আমার বন্ধু হবি
তোর আবহাওয়া’র সকল গ্লানি
আমি হব সঙ্গী

সুখ তুই কি আমার বেদনা হবি
কষ্ট আমার ভালো লাগে সুখের সাথে আড়ি

আকাশ তুই আমার বন্ধু
সুখ আমার বেদনা
সকল গ্লানি মুছে দিব আমরা দু’জন দু’জনা ।