এই পতাকা

খুন ঢেলে সাগর আর
করেছি নদী,
দেবো সব তাজা খুন
লাগে ফের যদি।

জন্মিলো পৃথিবীর
বুকে এই দেশ,
পাকি আর হানাদার
সব হলো শেষ।

একাত্তর আমাদের
খুন, ত্যাগে আঁকা।
লালে আর সবুজের
এই পতাকা

চারপাশে সবুজ আর
মাঝখানে লাল,
পতপতে উড়ে যায়
সকাল বিকাল

মানচিত্রে ঠাঁই পেলো
এদেশের নাম,
শহীদ আর গাজীদের
হাজার সালাম।
……………………………………………

নেই মানবতা

ফুটপাতে শুয়ে থাকে হাড়কাঁপা শীতে,
আমি আর তুমি থাকি তার বিপরীতে।
যায় না তো কিছু দেখা কুয়াশাও ঢের,
এই শীতে ফুটপাত বিছানা তাদের।

কেউ দেখে বাঁকা চোখে কেউ দেয় গালি,
কেউ ফের মজা করে দেয় হাততালি।
পথশিশু আর শুনো পথিকের কথা,
পথেঘাটে তড়পায় নেই মানবতা।

ভালো ঘুমে আমাদের সারারাত কাটে,
লেপতোশকের তাপে আর দামি খাটে।
দান করো তাদেরকে শীতের কাপড়,
পথেঘাটে থাকে যারা নেই বাড়িঘর।

দান সদকায় বাড়ে পুণ্য ও নেক,
জেগে তুলো সকলের সুস্থ বিবেক।
……………………………………………

থাকি উদাসী

আকাশের নীল যদি
বিষাদের হয়,
সব হবে আমারই
আর কারো নয়।

সাগরের গভীরতা
যদি ক্ষত হয়,
বুকে সব রেখেছি
সময় অসময়।

মুখ চেপে কত আর
চাপা হাসি হয়,
দুখ বুকে হাসি সব
মিছে অভিনয়।

এই মুখে প্রাণখোলা
নেই সেই হাসি
তাই এখন সব সময়
থাকি উদাসী।
……………………………………………

সব ঝুঁকিতে

মানুষ এখন নয় নিরাপদ
কখন কি বা হয়,
হঠাৎ বিপদ কার উপরে
এই হলো সব ভয়।

মা বোনেরা সব ঝুঁকিতে
অনিরাপদ ঘর,
জিনা, ধর্ষণ খুনখারাবি
এই শুনো ধর ধর।

মিথ্যা মামলায় কেউ আসামি
কার পিছনে বাঁশ,
কেউ হাসিতে কেউ ফাঁসিতে
জীবন্ত কেউ লাশ।

মানব আছে নেই মানবের
মানবতা আজ,
বিকৃত রূপ তাই ধরেছে
জানোয়ারের সাজ।
……………………………………………

তোমার হাসি

আমার দেখা সেরা হাসি
তোমার সেই মুখে,
কলকলানি সুরে আমার
ঢেউ উঠেছে বুকে।

যেই হাসিতে ছন্দ দোলে
মুক্তা ঝরে তালে,
পলকবিহীন তাকিয়ে রই
টোলপড়া সেই গালে।

যেই হাসিতে আমার শহর
জমকালো খুব সাজে,
রিনিঝিনি হাসির সুরে
সুখের বীণও বাজে।
……………………………………………

বাংলাতে হাসি কাঁদি

বাংলাতে লিখি আর
বলি মুখ ফোটে,
বায়ান্নের ইতিহাস
ভুলি নাই মোটে।

সালাম আর রফিকদের
তাজা লাল খুনে,
রাষ্ট্রীয় ভাষা আজ
বাংলাটা বুনে।

মা মাটির ঘ্রাণে আজ
বাংলাও হাসে,
বাংলায় কাঁদি আর
হাসি উল্লাসে।

একুশের চেতনায়
জাগো ফের সবে,
বিজয়ের হাসিমুখ
আমাদের হবে।

ভালো বই বন্ধু হয়

বই পড়ে দিন কাটে
রাত কাটে ভালো,
আঁধারের ঝোপঝাড়ে
বই জ্বালে আলো।

শিক্ষিত সমাজে
বই বড় দামি,
মন্দ বই জীবনের
বড় আসামি।

তাই বুঝে বই কিনো
দেখে গুণ ও মান
ভালো বই বন্ধু যে
আছেই প্রমাণ।
……………………………………………

রাতের কোলে

দূর আকাশে
মিটিমিটি চাঁদ হাসে রাতের কোলে,
খুব বাতাসে
নড়েচড়ে গাছপালা হেলে আর দোলে।

ভোর সকালে
ঝিরিঝিরি কুয়াশার ঝড় পড়ে ঘাসে,
শীতের কালে
কুটুমপাখির আগমন ঘটে এই মাসে।

আর সন্ধ্যাতে
বেলা শেষে সকলের ফেরা হয় নীড়ে,
তারপর রাতে
ঝিলিমিলি তারা সব চাঁদটাকে ঘীরে।
……………………………………………

ইচ্ছে জাগে

ইচ্ছে জাগে ফুল হবো আর
ফল হবো মিষ্টি,
ইচ্ছে জাগে রোদ হবো আর
ঝুম হবো বৃষ্টি।

ইচ্ছে জাগে গাছ হবো আর
ডাল হবো পাতা,
ইচ্ছে জাগে শীত হবো আর
লেপ হবো কাঁথা।

ইচ্ছে জাগে গান হবো আর
সুর হবো বাশি,
ইচ্ছে জাগে খুশ হবো আর
খুব হবো হাসি।

ইচ্ছে জাগে রাত হবো আর
চাঁদ হবো তারা,
ইচ্ছে জাগে ভোর হবো আর
নূর আলো দ্বারা।
……………………………………………

এই শহরে

এই শহরে তোমায় দেখে
আকাশ রবি হাসছিলো,
তোমার সুখে এই হৃদয়ের
শান্তি সুখের বাস ছিলো।

এই শহরে তোমার নামে
মনপাখিটা ডাকছিলো
তোমার নামের সব বিরহ
আমার মনও মাখছিলো

এই শহরে তোমার নামে
সন্ধ্যে তারা চাঁদ ছিলো,
তোমার চোখের জল দেখে সব
এক নাগাড়ে কাঁদছিলো।

এই শহরে তোমার চরণ
যেই প্রথমে পড়ছিলো,
উতলে উঠা আমার প্রেমের
ঝুমঝুমা ঝুম ঝড় ছিলো।