কাগজ থেকে কাগজীটোলা : কাগজের নাম জরফসান

মুসলিম শাসন আমলে বাংলাদেশে তৈরি হতো তিন ধরনের কাগজ। এক ধরনের কাগজ সবাই ব্যবহার করতেন। আরেক প্রকার কাগজ ছিল উন্নত মানের। দামী এই কাগজ ব্যবহার করতেন আমীর-ওমরাহ বা উচ্চপদস্থ লোকেরা। আরেকটি বিশেষ ধরনের কাগজ এদেশে তৈরি হতো। তা ঘোঁটা কাগজ নামে পরিচিত।

এই ঘোঁটা কাগজ ছিল তিন প্রকার। সাধারণ সাদা কাগজ কড়ি বা নুড়ির সাহায্যে পালিশ করে মসৃণ করা হতো। দ্বিতীয় প্রকার কাগজ ‘জরফসান’ নামে পরিচিত ছিল। জরফসান কাগজে রূপালী ও সোনালী ছিটা দেয়া থাকতো। তৃতীয় প্রকার ঘোঁটা কাগজে ছোট ছোট পাটালী আকারের রূপালী ও সোনালী পাত বসানো থাকতো। ঘোঁটা কাগজ বিশেষ বিশেষ উপলক্ষে ব্যবহার করা হতো। এই কাগজের আকার ছিল লম্বাটে।